• ask@obokash.com, obokash.net@gmail.com
  • +88-02-9853475, +88-01945111444

থাইল্যান্ড ভ্রমনের জন্য জনপ্রিয় ৭টি স্থানের নাম

Tour Thailand

থাইল্যান্ড ভ্রমনের জন্য জনপ্রিয় ৭টি স্থানের নাম

বিদেশ ভ্রমণের জন্য বর্তমানে অধিকাংশ অনেক আগ্রহী মানুষকেই পাওয়া যায়। বাংলাদেশে বসবাসরত এসব আগ্রহী মানুষদের জন্য কাছাকাছি ঘোরার জন্য দেশের বাইরে একটি ভ্রমণ স্থানে পরিপূর্ণ দেশ হতে পারে থাইল্যান্ড। আর খুব বেশি দূরে না হওয়ায় বেশ সুলভ বাজেটেই ঘুরে আসা যায় থাইল্যান্ড।

চলুন জেনে নেয়া যাক থাইল্যান্ডের ৭টি আকর্ষণীয় জায়গার নাম যেগুলো পরিদর্শনে আপনার ভ্রমণ কালীন স্মৃতি হতে পারে আরো সুমধুর।

১. ব্যাংকক

Bangkok Tour

থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককের কথা কে না জানে। তবে এই ব্যাংককের মতো দুর্লভ দর্শনীয় স্থান কম ই আছে তাই বা কয়জন জানে। তাই নিজে জানতে ঘুরে আসুন ব্যাংকক। আকাশচুম্বী টাওয়ার, আধুনিক স্থাপত্য, মন মাতানো চিত্র প্রদর্শনীয় গ্যালারির পাশাপাশি বিভিন্ন জাদুঘর তো থাকছেই। মনে করিয়ে দিই, ভাসমান বাজার এবং শপিং এর জন্য কিন্তু বিখ্যাত এই শহর। বি টি এস স্কাই ট্রেন বা এম আর টি পাতাল ট্রেন ভ্রমণ ও করে নিতে পারেন ব্যাংকক ভ্রমণ কালীন। তাছাড়া এখানে পাবেন প্রচুর স্ট্রিট ফুডের ছড়াছড়ি। মুখ রোচক এসব খাবারও আপনার ভ্রমণ স্মৃতিকে আরো সুন্দর করবে।

ব্যাংকক ভ্রমণ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন: Bangkok Tour

২. ফুকেট

Phuket Tour

ফুকেট হলো এ দেশের সব থেকে বড় দ্বীপ। এই দ্বীপে সবার আনাগোণার মূল উদ্দেশ্যই হলো ফূর্তি করা। রাতভর বীচ জুড়ে চলে বিচিত্র সব বিনোদন। আর মৌসুমী বায়ুর স্থান বলে এই জায়গা আরো জনপ্রিয় ও আরামদায়ক। জেট স্কিটেইং, হাইকিং, ফিশিং ইত্যাদির জন্য এই জায়গা হতে পারে আপনার জন্য সব থেকে পছন্দের স্থান। এখানে আরো দেখতে পারবেন বিশ্ববিখ্যাত রেস্টলিং, যা দেখতে আপনাকে যেতে হবে মুয়া ফাইট ক্লাবে। ফুকেট ট্রিক আই মিউজিয়ামে গিয়ে হাস্যকর ছবি তুলতে ভুলে যাবেন না অবশ্যই। আর বিশ্বের প্রায় সব রকমের রেস্তোরাঁ , বার, ক্লাব পেতে পারেন ফুকেটে। তাই ফুকেট ভ্রমণ অবশ্যই ভোলা যাবে না।

ফুকেট ভ্রমণ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন: Phuket Tour Package

৩. আয়ুথায়া

ayutthaya tour

সব থেকে পুরনো শহর এটি এদেশের। এখানে গেলে দেখতে পারবেন সারি সারি বৌদ্ধ মন্দির। পুরাকীর্তির প্রতি আকর্ষণ যাদের বেশি তাদের জন্য এই জায়গা আবশ্যিক ভ্রমণের। ব্যাংককের কাছেই এটি। তবে এই জায়গা ঘোরার জন্য সাইকেল ভাড়া করে নেওয়া বুদ্ধিমানের কাজ। এই শহরটি ইউনেস্কো আওতাভুক্ত। বুঝতেই পারছেন এর ঐতিহাসিক গুরুত্ব। সায়ামের স্বর্ণ যুগের কথা নিশ্চয়ই স্মরণ আছে? এই শহর ভ্রমণ আপনাকে ঠিক সে যুগেই নিয়ে যাবে।

৪. ক্র্যাবি

krabi thailand

ক্র্যাবি হলো থাইওল্যান্ডের মূল ভূখন্ড দেখার একটি জায়গা, পাশাপাশি এখানে দ্বীপ ও পাবেন। থাইল্যান্ডের সব থেকে সুন্দর দ্বীপের নাম “ কোহ ফি ফি “। এর পাশে ম্যানগ্রোভ বন পাবেন। পশু প্রেমী যদি হয়ে থাকেন, তাহলে বলতে হয় এই জায়গা আপনার জন্যেই। ক্র্যাবি ঘুরতে এসে “ মায়া বে” পয়েন্ট ঘুরতে অবশ্যই ভুলবেন না। বুঝতেই পারবেন এ দ্বীপ কে কেন বলা হয় সৌন্দর্যের আঁধার।

ক্রাবি ভ্রমণ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন:Krabi Tour Package

৫. কাঞ্চনা বুরি

kanchanaburi tour

কাঞ্চনা বুরি অবস্থিত থাইল্যান্ডের পশ্চিমে। থাইল্যান্ডের যুদ্ধ নিয়ে ঐতিহাসিক সুন্দর এই জায়গা টি। এখানে আছে কুয়াই নদী। যার উপর দাঁড়িয়ে এখানের সৌন্দর্য উপভোগ করতে আসেন হাজার হাজার পর্যটক। এখানে আছে ডেথ রেলওয়ে। এই রেলওয়ে নির্মাণের পেছনে যে সুদীর্ঘ রহস্যময় ইতিহাস লুকিয়ে আছে তা জানতেই আপনাকে ভ্রমণ করতে হবে এখানে। প্রা থাট নামের একটি গুহা এখানে পাবেন। এই গুহা কে শান্তির স্থান বলে আখ্যায়িত করা হয়। জনমানব থেকে দূরে এসে মেই খামিন নামক একটি জলপ্রপাত উপভোগ করতে পারেন এখানে। যুদ্ধকালীন কবরস্থান পাবেন এখানে। বিশাল বিশাল মন্দির আর ন্যাশনাল পার্কের সমারোহ এই জায়গায়। থাইল্যান্ডের ভেতরেই এ যেন এক ভিন্ন জায়গা।

৬. কোহ ফাঙ্গান

koh phangan

মুন লিট নাইটে ফূর্তির জন্য এই জায়গা বেশ জনপ্রিয়। মূলত পার্টি প্রেমীদের জন্য এই জায়গা টা। হাদ রিন নামক এখানের একটি জায়গা আছে যা পার্টি করার জন্য বেশ বিখ্যাত। ছড়ান ছিটান ছোট ছোট দ্বীপ, সেখানে গেলে রাতকালীন বাজার পাবেন বিভিন্ন রকমের। খুব সুস্বাদু খাবার পাবেন খুব ই সুলভ মূল্যে। আপনার যদি হাতে সময় থাকে বেড়িয়ে আসতে পারেন বিভিন্ন থাই রান্নার সেন্টার থেকে। থাই সকল রান্না এখানেই শেখান হয় বেশি। তাছাড়া ইয়োগা সেন্টার গুলো ও পাবেন এখানে। কিছু সময় সেখানে থেকে পেয়ে যেতে পারেন মানসিক প্রশান্তি।

৭. পাতায়া

pattaya tour

থাইল্যান্ডে গেলে কিছু জায়গা যেগুলোর কথা মনে করিয়ে দিতে হয় না তার মধ্যে পাতায়া অন্যতম। পাতায় অবশ্য হানিমুনের জন্যেও বিখ্যাত। তবে নারী সান্নিধ্য ও মদ্যপানের এভেইলেবিলিটী থাকায় এই জায়গা কে অনেকে পাপের শহর বলে থাকেন। তাই অনেকেই এখানে প্রাপ্ত বয়স্ক ছাড়া ভ্রমণে নিষেধ করে থাকেন। তবে এসবের পাশাপাশিও আছে দেখার মতো বেশ কিছু জায়গা। দন্যান্য সী বীচ গুলোর মতো অতো সুন্দর না হলেও পাতায়ার সূর্যাস্ত আপনার মন কেড়ে নেবে। স্নোরকেলিং এর জন্য কাছেই আছে ভিন্ন এক সী বীচ। কাঠের তৈরি ‘’ স্যাংকচুয়ান অফ দ্য ট্রুথ “ মূর্তি গুলো বেশ আকর্ষণীয়। এখানে আসলে অবশ্য নুচ বোটানিক্যাল গার্ডেন দেখতে ভুলবেনন না। নানারকম মূর্তি, ফুলের বাগান ও ফোয়ারা সমৃদ্ধ এই জায়গা ভ্রমণ আপনাকে বিশেষভাবে অভিভূত করবে।

পাতায়া ভ্রমণ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন:Pattaya Tour Package

তো এই হলো সাত স্থান, যা থাইল্যান্ড ভ্রমণের সময় আপনার ভ্রমন লিস্টে রাখলে আপনার থাইল্যান্ড স্মৃতি হবে সুখকর। বেড়িয়ে আসুন থাইল্যান্ড, সমৃদ্ধ করে আসুন আপনার ভ্রমণ স্মৃতি। শুভকামনা আপনার জন্য।

Add Comment